মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
পাতা

ইউনিয়ন সমুহ

নিকলী উপজেলায় ৭ টি ইউনিয়ন রয়েছে

 

ক্রমিক নং

ইউনিয়নের নাম

পরিচিতি

সিংপুর

একনজরে সিংপুর ইউনিয়ন পরিষদ

ইউনিয়ন –সিংপুর আয়তন -৫৫,১৯ বর্গকিলোমিটার

 লোকসংখ্যা  -পুরুষ   -মহিলা  -মোট  ১০২৫২ + ৯৩৭৮=১৯৬০০

আদমশুমারী -২০০১লোকসংখ্যা ঃ জন্ম নিবন্ধন/২০১২ পুরুষ ১১৯৭৮ নারী ১১৩৭৯ মোট ২৩৩৫৭

ভোটার সংখ্যা পুরুষ ৬৩০০ মহিলা ৬২১৪ মোট ১২৫১ ৪খানা -৪৩৮৮মৌজা ঃ ১৪ টি গ্রাম ঃ ৯ টি

হাট ঃ ১টি (সিংপুর)

নিম্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয় ঃ ১টি

দাখিল মাদরাসা ঃ ২টি

প্রাথমিক বিদ্যালয় ঃ ৭টি

রেজিঃ প্রাথমিক বিদ্যালয় ঃ ২টি

এবতেদায়ী মাদরাসা ঃ ৪টি

মসজিদ ঃ ১৪ টি

খেলার মাঠ ঃ ২ টি

দামপাড়া

 

কারপাশা

একনজরে কারপাশা ইউনিয়ন পরিষদ

 

গোলাম রব্বানী (সবুজ)------চেয়ারম্যান ----------মোবাইল নং-০১৭১৮১৭১৭১১

 মোঃ কেরামত আলী ---------সদস্য ১নং ওয়ার্ড ----মোবাইল নং-০১৯৩০৮৩৬৩০৪            

 মোঃ হাবিবুর রহমান---------সদস্য ২নং ওয়ার্ড----মোবাইল নং-০১৯৩৭৬৩২০৪৮

 মোঃ শাহির উদ্দীন ---------সদস্য ৩নং ওয়ার্ড-----মোবাইল নং-০১৭১২৯০০০০৫

 মোঃ নাজিম উদ্দীন --------সদস্য ৪নং ওয়ার্ড-----মোবাইল নং-০১৯১৫০৮৩৪৯২

  মোঃ আবুচান -----------সদস্য ৫নং ওয়ার্ড

  মোঃ মাহবুবুর রহমান-------সদস্য ৬নং ওয়ার্ড-----মোবাইল নং-০১৭২৯৬৩১৫৬১

 মোঃ ফজলুর রহমান-------সদস্য ৭নং ওয়ার্ড------মোবাইল নং-০১৭৫৭৮২৫৬২২

 মোঃ শাহাব উদ্দীন--------সদস্য ৮নং ওয়ার্ড ------মোবাইল নং-০১৭১৫৭৯৬৮২৯                              মোঃ হাছেন আলী---------সদস্য ৯নং ওয়ার্ড-------মোবাইল নং-০১৯১৮৭৩২১২০

 হোসনা বেগম--------সদস্য (সংরক্ষিত আসন ১,২,৩)---মোবাইল নং-০১৭২৭৫৬১০৫৮

 কমলা বেগম -------সদস্য (সংরক্ষিত আসন ৪,৫,৬)---মোবাইল নং-০১৯৩৬৮৫৮৪৭০

  জাহানারা বেগম -------সদস্য (সংরক্ষিত আসন ৭,৮,৯)------মোবাইলনং-০১৯১১৭০৪৩৭

  আবদুল মান্নান---------সচিব ইউনিয়ন পরিষদ

 ভৌগলিক অবস্থান--------উঃঅক্ষাংশ ২৪১৫-২৪২৭ এর মধ্যে পূঃদ্রাঘিমাংশ ৯০৫২-৯১০৩ এর মধ্যে

ইউনিয়নের মোট আয়তন ১৮.১৯ বর্গ কিলোমিটার

ইউনিয়নের মোট জনসংখ্যা-১৯,৮৬০জন

মোট পুরুষ -১০,০৯১জন

মোট নারী-৯,৭৬৯জন

মোট ভোটার সংখ্যা-১০৪৫২ জন

পুরুষ ভোটার-৫২২১ জন

নারী ভোটার-৫২৩১ জন

শিক্ষার হার মোট জনসংখ্যার ১০%

নিকলী সদর

একনজরে নিকলী সদর ইউনিয়ন পরিষদ

 

ক)    নামঃ-  নিকলী সদর ইউনিয়ন পরিষদ ।

খ)  আয়াতনঃ-  ১৯.৮৯ কিলো মিটার ।

গ) লোখ সংখ্যাঃ- ৩২,৭৬৩ জন [জন্ম নিবন্ধন তথ্যানুসারে]

ঘ) গ্রামের সংখ্যাঃ- ২০ (বিশ) টি ।

ঙ) মৌজারসংখ্যাঃ- ৫ (পাচ) টি ।

চ)হাটবাজারসংখ্যাঃ- ০৩টি।

ছ)জেলাসদরথেকেযোগাযোগমাধ্যমঃ– সিএনজি,পিকাপ, মিনিবাস,  অটুরিক্সা, ভেন ইত্যাদি  ।

 

জ)শিক্ষারহার- ৪৯%

    সরকারীপ্রাথমিকবিদ্যালয়-০৫টি।

    বেসরকারীপ্রাথমিকবিদ্যালয়- ০২টি।

    উচ্চবিদ্যালয়- ০২টি।

    মাদ্রাসা– ০১ টি ।

 কলেজ-০১ টি ।

ঝ)দায়িত্বরতচেয়ারম্যানঃ- জনাবকারারবুরহান উদ্দিন।

 

ঞ)নবগঠিতপরিষদেরবিবরন

    ১)শপথ গ্রহনের তারিখঃ- ২১/০৭/২০১১খ্রিঃ।  

   ২) প্রথম সভারতারিখঃ- ২৭/০৭/২০১১খ্রিঃ।

                         

ট)গ্রামসমূহেরনামঃ-

মির্জাপুর, মোহরকোনা, আনন্দ নগর-, কৈবতহাটি, মঞ্জিলহাটি, কুমারছাড়া, দরগাহাটি, পূর্বগ্রাম, টিক্ষলহাটি, নগর, বড়পুকুরপাড়, ধুপাহাটি, তেলিহাটি, বানিয়াহাটি-, কামারহাটি, বড়হাটি, ষাইটধার, পাচরুখী, কুর্শা।

 

ঠ)ধর্মীয় প্রতিষ্টানঃ-

   ১) মসজিদ- ২৫ টি

   ২) মন্দির- ৫ টি

   ৩) আখরা- ২ টি

 

                     

ঠ)ইউনিয়নপরিষদজনবলঃ-

  ১)নিবাচিতপরিষদসদস্য- ১৩জন।

  ২)ইউনিয়নপরিষদসচিব-০১জন।

  ৩)ইউনিয়নগ্রামপুলিশ-০৯জন।

 

জারইতলা

একনজরে জারইতলা ইউনিয়ন পরিষদ

ক)নাম- জারইতলাইউনিয়ন।

খ)আয়তন- ৬০৯৯একর।

গ)লোকসংখ্যা- ২২৪৪৯জন(জন্ম নিবন্ধন তথ্যানুসারে)

ঘ)গ্রামেরসংখ্যা- ১৪টি।

ঙ)মৌজারসংখ্যা- ১১টি।

চ)হাটবাজারসংখ্যা- ০৩টি।

ছ)উপজেলাসদরথেকেযোগাযোগমাধ্যম– সিএনজি,রিক্সা।

জ)শিক্ষারহার- ৩২%

    সরকারীপ্রাথমিকবিদ্যালয়-০৯টি।

    বেসরকারীপ্রাথমিকবিদ্যালয়- ০৫টি।

    উচ্চবিদ্যালয়- ০২টি।

    মাদ্রাসা– ০৩ টি ।

ঝ)দায়িত্বরতচেয়ারম্যান- জনাবমোঃরইছউদ্দিন।

ঞ)ইউনিয়নভবনস্থাপনকাল- ২৪শেডিসেম্বর২০০৮খ্রিঃ।

ট) নবগঠিতপরিষদেরবিবরন

  ১)শপথ গ্রহনের তারিখ-২১/০৭/২০১১খ্রিঃ।

  ২) প্রথম সভারতারিখ- ৩১/০৭/২০১১খ্রিঃ।

  ৩)মেয়াদউত্তীর্ণেরতারিখ- ৩০/০৭/২০১৬খ্রিঃ।

ঠ)গ্রামসমূহেরনাম

   রোদারপুড্ডা,ছেত্রা,রসুলপুর,ধারীশ্বর,আঠারবাড়ীয়া,চারিগাতী

   কামালপুর,বনমালীপুর,হাবশ্বরদিয়া,জারইতলা,উত্তর জাল্লাবাদ,দক্ষিন  জাল্লাবাদ, শাহপুর,সাজনপুর   

 ড)ইউনিয়নপরিষদজনবল

  ১)নিবাচিতপরিষদসদস্য- ১৩জন।

  ২)ইউনিয়নপরিষদসচিব-০১জন।

  ৩)ইউনিয়নগ্রামপুলিশ-০৭জন।

গুরই

 

ছাতিরচর

ঘোড়াউত্রা নদীর তীব্র ভাঙ্গনের বুকে গড়ে উঠা নিকলী উপজেলার একটি ঐতিহ্যবাহী হাওড়াঞ্চল হলো ছাতিরচর ইউনিয়ন ।জমিদারী প্রথা তালুকদারীতে রূপান্তরিত হলে প্রায় ১৮৫০ খ্রিষ্ঠাব্দে কিছু মানুষের বসতি গড়ে উঠে চরের এই হাওড়ে ।তালুকদারগন খাজনা আদায়ের জন্য স্থানীয় প্রতিনিধি নিয়োগ করতেন ।আর তাদেরকে উপহার হিসাবে দিতেন একটি করে ছাতা ।হাওড়ে কোন গাছপালা না থাকায় ছাতা খুব জনপ্রিয় উপহারে পরিনত হয় বিভিন্ন আনুষ্ঠানিকতায়।চরের এই গ্রামটির পূর্ব কোন নাম না থাকায় আঞ্চলিক ভাষায় গ্রামটির নাম করন করা হয় ছাতিরচর।কাল পরিক্রমায় ছাতিরচর ইউনিয়ন শিক্ষা, সংস্কৃতি, ধর্মীয়অনুষ্ঠান, খেলাধুলা সহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে তার নিজস্ব স্বকীয়তায় আজ সমুজ্জ্বল।